পকেট খালি, স্কুল ফি না দিতে পেরে পথে ‘কপর্দকশূন্য’ অভিভাবকরা

সৌপ্তিক বন্দ্যোপাধ্যায় : ফি বৃদ্ধির প্রতিবাদ হচ্ছে বিভিন্ন স্কুলে। এবার আরও একধাপ এগিয়ে শুধুমাত্র একেবারেই নিরুপায় যারা তাদের ফি মকুব করার দাবি নিয়ে অভিভাবকদের বিক্ষোভ। পোস্টার ব্যানার নিয়ে থাকবে ছাত্রছাত্রীরাও। সাহায্যের আর্জি নিয়ে আইএনটি ইউসি দ্বারস্থ অভিভাবকেরা।

বেসরকারি স্কুলে ফি বৃদ্ধি সংক্রান্ত নানা বিষয়ে অভিভাবকদের বিক্ষোভ, প্রতিবাদের বিরোধিতায় সরব হচ্ছেন একাধিক স্কুল কর্তৃপক্ষ, নিয়ন্ত্রক প্রতিষ্ঠান এবং স্কুলের শিক্ষক ও শিক্ষাকর্মীরা। এবার শুধুমাত্র নিরুপায় ছাত্র ছাত্রীদের অভিভাবকরা বিক্ষোভ দেখালেন অন্তত তাঁদের ফি মকুব করার জন্য। কলকাতার বিশপ সোমবারই চার্চ অফ নর্থ ইন্ডিয়ার অধীনে থাকা মহানগরের শতাব্দী প্রাচীন ১৩টি স্কুলে চলতি শিক্ষাবর্ষে কোনও ফি বাড়ানো হয়নি বলে জানিয়ে সরাসরি মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে চিঠি লেখে। গত শনিবার লেক গার্ডেন্সের এ কে ঘোষ মেমোরিয়াল স্কুল ও পিকনিক গার্ডেনের সারদা এডুকেয়ারের শিক্ষকরা অভিভাবকদের ফি বাড়ানো ও মকুবের দাবি উড়িয়ে দিয়েছেন। এ দিকে, ডিপিএস রুবি পার্ক লকডাউন পর্বে পড়ুয়াদের ত্রৈমাসিক টিউশন ও সেশন ফি এবং বাস ভাড়া অনেকটাই মকুব করেছে। ষষ্ঠ থেকে অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত পাঁচ হাজার টাকারও বেশি ফি কমানো হয়েছে।

এ কে ঘোষ মেমোরিয়ালের শিক্ষকরা জানিয়েছেন, ১২ জুন অভিভাবকরা ফি ‘বৃদ্ধি’র দাবিতে যে বিক্ষোভ দেখিয়েছেন, তা যুক্তিযুক্ত নয়। স্কুলে এ বছর ফি বৃদ্ধিই হয়নি। তার পরও প্রাথমিক ও মাধ্যমিক শাখার একদল অভিভাবক লেক গার্ডন্সে ওই স্কুলের সামনে বিক্ষোভ দেখান। কয়েকজন বিক্ষোভকারী খারাপ ভাষায় শিক্ষকদের নামে স্লোগানও দেন। তবে রফা বৈঠকে দেখা যায়, তাঁদের অধিকাংশ অভিযোগই ঠিক নয়। স্কুলের এক শিক্ষিকা এ দিন বলেন, ‘শনিবার আমরা সেই অপপ্রচার ও সত্যের উপর আলোকপাত করেছি মাত্র। ফি নিয়ে কারও উপর কোনও চাপ দেওয়া হয়নি।’ একই ভাবে সারদা এডুকেয়ারের অভিভাবকরা এ দিন ফি মকুবের দাবিতে বিক্ষোভ দেখাতে এলে তাঁদের সঙ্গে শিক্ষকদের বাদানুবাদ হয়। অভিভাবকদের দাবি ছিল, স্কুল কর্তৃপক্ষ তাঁদের উপর চাপ সৃষ্টি করছেন। অভিভাবকদের বিক্ষোভের পাল্টা শিক্ষকরা দাবি জানান, তাঁরা লকডাউনের সময় পড়ুয়াদের পড়াশোনা সংক্রান্ত সব রকম পরিষেবা দিয়েছেন। সরকারি ভাবে স্কুল খুললে শনিবার-সহ অন্য ছুটির দিনে ক্লাস নিয়ে ক্ষতি পুষিয়ে দেবেন। তার পর এই বিক্ষোভ অর্থহীন।

প্রসঙ্গত বুধবার , লকডাউনের মধ্যে ইচ্ছে মতো তাঁদের বেতন কাটা হচ্ছে বলে অভিযোগ তুলে রাস্তায় নেমে বিক্ষোভের হুমকি দিলেন বেসরকারি স্কুলের শিক্ষকেরা। ওই শিক্ষকদের একটি অংশের অভিযোগ, লকডাউন চলাকালীন খেয়ালখুশি মতো শুধু বেতন কমানোই নয়, কিছু বেসরকারি স্কুল শিক্ষকদের ছাঁটাইও করছে। অভিযোগ, যে সব শিক্ষকদের অনলাইনে ক্লাস নিতে হচ্ছে না বা কম ক্লাস করাতে হচ্ছে, যেমন গান, আবৃত্তি, আঁকা বা খেলা— তাঁদের উপরে কোপ পড়ছে বেশি। এ-ও অভিযোগ, যাঁরা অনলাইনে ক্লাস নিচ্ছেন, তাঁদের কারও কারও বেতন ৫০-৭০ শতাংশ কেটে নেওয়া হচ্ছে !

The post পকেট খালি, স্কুল ফি না দিতে পেরে পথে ‘কপর্দকশূন্য’ অভিভাবকরা appeared first on Kolkata24x7 | Read Latest Bengali News, Breaking News in Bangla from West Bengal's Leading online Newspaper.



from Kolkata24x7 | Read Latest Bengali News, Breaking News in Bangla from West Bengal's Leading online Newspaper
Source Url: https://www.kolkata24x7.com/guardians-protest-for-school-fee-hike/

Post a Comment

0 Comments